কুষ্টিয়ায় মহাসড়কে ঝরলো আরো দুই জনের প্রাণ

কুষ্টিয়া প্রতিনিধিঃ সড়কে মৃত্যুর মিছিল থামছেই না। এবার বিকাল ৬টায় কুষ্টিয়া-রাজবাড়ী মহাসড়কের লাহিনী এলাকায় ট্রাকের সঙ্গে মাহিন্দ্রা অটোরিক্সার সংঘর্ষে আরো দুই জনের প্রাণ গেল। এতে অটোরিক্সার আরো ৩ যাত্রী গুরুতর আহত হয়েছেন। তাদের কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। ঘটনাস্থলে নিহতের নাম হেলেনা বেগম (৬০)। তার বাড়ি রাজবাড়ী জেলার পাংশা উপজেলার মেঘনা গ্রামে। কুষ্টিয়া মডেল থানার এসআই জিয়া ঘটনাস্থল থেকে এ খবর নিশ্চিত করেছেন। আর হাসপাতালে ভর্তির পর সাড়ে ৭টার দিকে মারা যান মাহিন্দ্র অটোরিক্সার চালক জাহাঙ্গী। স্থানীয় বাসিন্দা হাফিজুল বলেন, মাহিন্দ্রা অটোরিক্সা ৫ যাত্রী নিয়ে কুমারখালীর দিক থেকে কুষ্টিয়া অভিমুখে আসছিল। আর ১০ চাকার একটি বড় ট্রাক বিপরীত দিকে যাচ্ছিল। বিকাল ৬টার দিকে যখন বৃষ্টি হচ্ছিল সেসময় রাস্তার ডান পাশে চেপে গিয়ে ট্রাকটি অটোরিক্সাকে ধাক্কা দেয়। দুমড়ে মুচড়ে যায় অটোরিক্সাটি। সেখানে ঘটনাস্থলেই মারা যান হেলেনা বেগম। তার মেয়ে নাহিদা খাতুন ও কুষ্টিয়ার বাঁশগ্রামের ভাই-বোন তুহিন ও শিলা আহত হয়েছেন। স্থানীয়রা বলছেন, ট্রাকের চালক পাশে বসা ছিলো আর হেলপার চালাচ্ছিলো। তারা পালিয়ে গেছেন। স্থানীয় বাসিন্দারা আজো সমস্বরে এই এলাকায় সড়কে গতিরোধক ও নিয়মিত ডিউটিতে ট্রাফিক পুলিশ দেয়ার দাবি জানিয়েছেন। এর আগে ভোররাতে একই মহাসড়কের মোল্লাতেঘড়িয়া সড়ক দুর্ঘটনায় মসলেম শেখ (৫৫) নামে এক ভ্যানচালক নিহত হয়েছেন।